• Friday, 01 March 2024
পাইলস নিয়ে দুশ্চিন্তা ? …আছে ঘরোয়া সমাধান

পাইলস নিয়ে দুশ্চিন্তা ? …আছে ঘরোয়া সমাধান

মানব শরীরে এমন কিছু রোগ বাসা বাঁধে যা মুখ ফুটে সবাইকে বলাও যায় না । অর্শরোগ বা পাইলস তেমনই একটি শারীরিক সমস্যা। মলদ্বারে যন্ত্রণা, রক্ত পড়া, মলদ্বার ফুলে ওঠা, জ্বালা করা ইত্যাদি অর্শ্বরোগের সাধারণ উপসর্গ।দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে অথবা বসে থাকার অভ্যাস, ফাইবারযুক্ত খাবারের অভাব, কোষ্ঠকাঠিন্য, শরীরের বাড়তি ওজন ইত্যাদি কারণে এই রোগ শরীরে বাড়তে থাকে। ডাক্তার কবিরাজের কাছে যাই আমরা অনেকেই ,তবে কিছু ঘরোয়া উপায়েও এই সমস্যার সমাধান করা সম্ভব। আসুন জেনে নিই পাইলসের ঘরোয়া সমাধান।

পাইলস রোগের ঘরোয়া চিকিৎসাঃ

  1. অর্শরোগের জন্য অ্যালোভেরা খুবই কার্যকরি একটি উপাদান । আক্রান্ত স্থানে অ্যালোভেরা জেল লাগিয়ে ম্যাসাজ করুন। এটি দ্রুত ব্যথা কমিয়ে দিতে সাহায্য করবে। আভ্যন্তরীণ অর্শরোগের ক্ষেত্রে অ্যালোভেরা পাতার কাঁটার অংশ কেটে জেল অংশটুকু একটি প্ল্যাস্টিকের প্যাকেটে ভরে ফ্রিজে রেখে দিন। এবার এই ঠান্ডা অ্যালোভেরা জেলের টুকরো ক্ষত স্থানে লাগিয়ে রাখুন। এটি জ্বালা, ব্যথা, চুলকানি কমিয়ে দেবে ।
  2. অল্প পরিমাণ তুলা নিয়ে অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার লাগিয়ে ব্যথার স্থানে লাগান। শুরুতে এটি জ্বালাপোড়া সৃষ্টি করবে, কিন্তু কিছুক্ষণ পর এই জ্বালাপোড়া কমে যাবে। এটি পদ্ধতিটিও দিনে বেশ কয়েকবার অবলম্বন করুন। অভ্যন্তরীণ (ইন্টারনাল) অর্শরোগের জন্য এক চা চামচ অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার এক গ্লাস পানিতে মিশিয়ে দিনে দু’বার খান। এর সঙ্গে এক চা চামচ মধু মিশিয়ে নিতে পারেনীতে ভিনেগারের কার্যকারিতা আরো বাড়বে ।
     
  3. অর্শরোগের জন্য অলিভ অয়েলের কার্যকারিতা সর্বজনস্বীকৃত। প্রতিদিন এক চা চামচ অলিভ অয়েল খাওয়ার অভ্যাস করুন । এটি অর্শজনিত দেহের প্রদাহ দ্রুত হ্রাস করতে সাহায্য করে। 
  4. কম পরিমাণ পানি পান করা ও অর্শরোগের অন্যতম আরেকটি কারণ। আদাকুচি, লেবু এবং মধু মিশ্রণ দিনে দু’বার খান। এই মিশ্রণ নিয়মিত খেলে অর্শরোগ দ্রুত নিয়ন্ত্রণে আসে। এ ছাড়া দিনে অন্তত ২-৩ লিটার পানি পান করলেও অনেকটা উপকার পাওয়া যায়।
  5. হাতের কাছে সবসময় পাওয়া যায়, এমন একটি অর্শ নিরাময় করার অন্যতম উপাদান “বরফ”। বরফ রক্ত চলাচল সচল রাখে এবং ব্যথা দূর করে দেয়। একটি কাপড়ে কয়েক টুকরো বরফ পেঁচিয়ে ব্যথার স্থানে ১০ মিনিট রাখুন। এভাবে দিনে বেশ কয়েকবার বরফ ব্যবহার করলে উপকার পাবেন বলে আশা করা যায় ।

অর্শ বা পাইলস নিয়ে অযথা দুশ্চিন্তা বা অবৈজ্ঞানিক কোন পন্থা অবলম্বন না করে বরং উপরে বর্ণিত উপায়গুলো যথাযথভাবে অনুসরন করুন । অবশ্যই সুফল পাবেন ।

Comment / Reply From

Newsletter

Subscribe to our mailing list to get the new updates!